Dhaka 7:58 pm, Friday, 3 February 2023

৩শ মণ পাট সহ ট্রাক উধাও!

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : 06:06:50 pm, Friday, 2 October 2020
  • / 1199 জন সংবাদটি পড়েছেন

 

জনতার আদালত অনলাইন॥ রাজবাড়ী থেকে কুড়িগ্রামের ভুড়–ঙ্গামারীগামী তিনশ মণ পাটসহ একটি ট্রাক উধাও হয়ে গেছে। গত সাতদিন ধরে কোনো খোঁজ নেই। এঘটনায় পাট ব্যবসায়ী সাধন গোস্বামী রাজবাড়ী সদর থানায় একটি জিডি করেছেন। তিনি রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার বহরপুর গ্রামের বাসিন্দা।

সাধন গোস্বামী জানান, দেশের বিভিন্ন জেলায় তিনি পাট কেনাবেচা করেন। গত ২৪ সেপ্টেম্বর তারিখে রাজবাড়ী জুট মিল থেকে তিনশ মণ পাট কিনে কুড়িগ্রামের ভুড়–ঙ্গামারী উপজেলার পাট ব্যবসায়ী ধীরেন্দ্রনাথ কুন্ডুর কাছে পৌছে জন্য ট্রাক ভাড়া করেন। ওইদিন রাত সাড়ে সাতটার দিকে ট্রাকটি রওনা করে। পাঠানোর দুই দিন পরও ট্রাকটি না পৌছানোয় তিনি ট্রাকটির চালক শাকিল সরদারকে মোবাইল ফোনে কল করেন। কিন্তু সেটি বন্ধ পান। ট্রাকের মালিক শামসুদ্দিন শেখকে কল করেও ফোন বন্ধ পান। একারণে গত ২৭ সেপ্টেম্বর তারিখে তিনি রাজবাড়ী সদর থানায় জিডি করেন। বুধবার পর্যন্ত ট্রাক, চালক, মালিক  কারোই কোনো হদিস নেই। পাঠানো তিনশ মণ পাটের দাম সাত লাখ  ২০ হাজার টাকা। ট্রাক খুঁজে না পেলে সমূহ আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হবেন তিনি। ট্রাকের চালক ও মালিকের বাড়ি পাবনা জেলার চাটমোহর উপজেলা এলাকায় বলে তিনি জেনেছেন।

ট্রাকের চালক শাকিল সরদার ও মালিক শামসুদ্দিন শেখের মোবাইল ফোনে একাধিকবা কল করা হলে তা বন্ধ পাওয়া যায়।

রাজবাড়ী সদর থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, এব্যাপারে একটি জিডি হয়েছে। পুলিশ পাটসহ ট্রাকটি উদ্ধারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

৩শ মণ পাট সহ ট্রাক উধাও!

প্রকাশের সময় : 06:06:50 pm, Friday, 2 October 2020

 

জনতার আদালত অনলাইন॥ রাজবাড়ী থেকে কুড়িগ্রামের ভুড়–ঙ্গামারীগামী তিনশ মণ পাটসহ একটি ট্রাক উধাও হয়ে গেছে। গত সাতদিন ধরে কোনো খোঁজ নেই। এঘটনায় পাট ব্যবসায়ী সাধন গোস্বামী রাজবাড়ী সদর থানায় একটি জিডি করেছেন। তিনি রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার বহরপুর গ্রামের বাসিন্দা।

সাধন গোস্বামী জানান, দেশের বিভিন্ন জেলায় তিনি পাট কেনাবেচা করেন। গত ২৪ সেপ্টেম্বর তারিখে রাজবাড়ী জুট মিল থেকে তিনশ মণ পাট কিনে কুড়িগ্রামের ভুড়–ঙ্গামারী উপজেলার পাট ব্যবসায়ী ধীরেন্দ্রনাথ কুন্ডুর কাছে পৌছে জন্য ট্রাক ভাড়া করেন। ওইদিন রাত সাড়ে সাতটার দিকে ট্রাকটি রওনা করে। পাঠানোর দুই দিন পরও ট্রাকটি না পৌছানোয় তিনি ট্রাকটির চালক শাকিল সরদারকে মোবাইল ফোনে কল করেন। কিন্তু সেটি বন্ধ পান। ট্রাকের মালিক শামসুদ্দিন শেখকে কল করেও ফোন বন্ধ পান। একারণে গত ২৭ সেপ্টেম্বর তারিখে তিনি রাজবাড়ী সদর থানায় জিডি করেন। বুধবার পর্যন্ত ট্রাক, চালক, মালিক  কারোই কোনো হদিস নেই। পাঠানো তিনশ মণ পাটের দাম সাত লাখ  ২০ হাজার টাকা। ট্রাক খুঁজে না পেলে সমূহ আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হবেন তিনি। ট্রাকের চালক ও মালিকের বাড়ি পাবনা জেলার চাটমোহর উপজেলা এলাকায় বলে তিনি জেনেছেন।

ট্রাকের চালক শাকিল সরদার ও মালিক শামসুদ্দিন শেখের মোবাইল ফোনে একাধিকবা কল করা হলে তা বন্ধ পাওয়া যায়।

রাজবাড়ী সদর থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, এব্যাপারে একটি জিডি হয়েছে। পুলিশ পাটসহ ট্রাকটি উদ্ধারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।