Dhaka ১২:৪৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গৃহবধূকে হাত-মুখ বেঁধে ধর্ষণে অভিযুক্ত আলিমুদ্দিন র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার

স্টাফ রিপোর্টার
  • প্রকাশের সময় : ০৮:৩৯:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩
  • / ১০৯৬ জন সংবাদটি পড়েছেন

রাজবাড়ী সদর উপজেলার খানগঞ্জ ইউনিয়ন এলাকার এক গৃহবধূকে হাত-মুখ বেঁধে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত আলিমুদ্দিন মোল্লা র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছে। শুক্রবার সকালে তাকে মাগুড়ার শ্রীপুর এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিকেলে র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্প প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করে। গ্রেপ্তার আলিমুদ্দিন একই ইউনিয়নের রঘুনাথপুর গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে।

র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার কেএম শাইখ আক্তার জানান, গত ২৪ মার্চ তারিখে খানগঞ্জ ইউনিয়ন এলাকার এক গৃহবধূ প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিয়ে বাইরে বের হলে আলিমুদ্দিন তাকে জাপটে ধরে হাত ও মুখ বেঁধে ধর্ষণ করে। গৃহবধূ কৌশলে মুখের বাঁধন খুলে চিৎকার দিলে এলাকাবাসী এগিয়ে আসে। ওই সময় আলিমুদ্দিন পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় গৃহবধূ বাদী হয়ে নারী ও শিশু দমন নির্যাতন দমন আইনে রাজবাড়ী সদর থানায় মামলা করেন। এরই পরিপ্রেক্ষিতে র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্প গোয়েন্দা তৎপরতা শুরু করে। এক পর্যায়ে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে জানা যায়, আসামি আলিমুদ্দিনর মাগুরা জেলার শ্রীপুর থানা এলাকার কোদালা গ্রামে অবস্থান করছে। পরে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। আসামিকে রাজবাড়ী সদর থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

গৃহবধূকে হাত-মুখ বেঁধে ধর্ষণে অভিযুক্ত আলিমুদ্দিন র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার

প্রকাশের সময় : ০৮:৩৯:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩১ মার্চ ২০২৩

রাজবাড়ী সদর উপজেলার খানগঞ্জ ইউনিয়ন এলাকার এক গৃহবধূকে হাত-মুখ বেঁধে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত আলিমুদ্দিন মোল্লা র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছে। শুক্রবার সকালে তাকে মাগুড়ার শ্রীপুর এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিকেলে র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্প প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করে। গ্রেপ্তার আলিমুদ্দিন একই ইউনিয়নের রঘুনাথপুর গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে।

র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার কেএম শাইখ আক্তার জানান, গত ২৪ মার্চ তারিখে খানগঞ্জ ইউনিয়ন এলাকার এক গৃহবধূ প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিয়ে বাইরে বের হলে আলিমুদ্দিন তাকে জাপটে ধরে হাত ও মুখ বেঁধে ধর্ষণ করে। গৃহবধূ কৌশলে মুখের বাঁধন খুলে চিৎকার দিলে এলাকাবাসী এগিয়ে আসে। ওই সময় আলিমুদ্দিন পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় গৃহবধূ বাদী হয়ে নারী ও শিশু দমন নির্যাতন দমন আইনে রাজবাড়ী সদর থানায় মামলা করেন। এরই পরিপ্রেক্ষিতে র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্প গোয়েন্দা তৎপরতা শুরু করে। এক পর্যায়ে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে জানা যায়, আসামি আলিমুদ্দিনর মাগুরা জেলার শ্রীপুর থানা এলাকার কোদালা গ্রামে অবস্থান করছে। পরে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। আসামিকে রাজবাড়ী সদর থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।