Dhaka ১২:৫৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ মে ২০২৩, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বালিয়াকান্দিতে অটোরিক্সা চুরি করে পালানোর সময় জনতার হাতে ৩ জন আটক

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : ০৫:৩৯:২৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ নভেম্বর ২০২০
  • / ১৩৪১ জন সংবাদটি পড়েছেন

Exif_JPEG_420

জনতার আদালত অনলাইন ॥ রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের বড়হিজলি গ্রামে চালককে মারধর করে অটোরিক্সা নিয়ে পালানোর সময় জনতার হাতে তিনজন আটক হয়েছে। পরে তাদেরকে বালিয়াকান্দি থানায় সোপর্দ করা হয়। বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে তিনটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আটককৃতরা হলো বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া ইউনিয়নের ঘিকমলা গ্রামের জহর মোল্যার ছেলে মঞ্জু মোল্যা, নরসিংদী জেলার রায়পুরা উপজেলার শাহেরচর মধ্যেপাড়ার কফিল উদ্দিন প্রধানের ছেলে মো. রিপন মিয়া  ও নরসিংদী সদর উপজেলার চিনিশপুর গ্রামের সোবহান মিয়ার ছেলে আইনুল মিয়া ওরফে শামীম। এঘটনায় অটোচালক আকমল হোসেন বাদী হয়ে তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।

নবাবপুর ইউনিয়নের বড়হিজলী গ্রামের বাসিন্দা আকমল হোসেন জানান, রাতে তার বাড়ির গ্যারেজে অটোরিক্সাটি চার্জে দিয়ে রেখেছিলেন। সাড়ে তিনটার দিকে কিছু একটার শব্দে তার মায়ের ঘুম ভাঙে। তার মা জানালা দিয়ে টর্চ মেরে দেখেন কয়েকজন তার অটোরিক্সাটি নিয়ে যাচ্ছে। তার মা চিৎকার দিলে বাইরে বেরিয়ে আটকানোর চেষ্টা করেন। এসময় দুর্বৃত্তরা তাকে রড দিয়ে পিটিয়ে রাস্তায় ফেলে দেয়। তিনি চিৎকার দিলে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে তিন দুর্বৃত্তকে আটক করে। পরে তাদের বালিয়াকান্দি থানায় সোপর্দ করা হয়।

বালিয়াকান্দি থানার ওসি তারিকুজ্জামান জানান, এব্যাপারে অটো চালক তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। আসামিদের মধ্যে রিপন মিয়ার নামে নরসিংদী, কুমিল্লা থানায় ডাকাতি ও দস্যুতার একাধিক মামলা রয়েছে। বৃহস্পতিবার তিনজনকে রাজবাড়ীর আদালতে চালান করা হয়েছে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

বালিয়াকান্দিতে অটোরিক্সা চুরি করে পালানোর সময় জনতার হাতে ৩ জন আটক

প্রকাশের সময় : ০৫:৩৯:২৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ নভেম্বর ২০২০

জনতার আদালত অনলাইন ॥ রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের বড়হিজলি গ্রামে চালককে মারধর করে অটোরিক্সা নিয়ে পালানোর সময় জনতার হাতে তিনজন আটক হয়েছে। পরে তাদেরকে বালিয়াকান্দি থানায় সোপর্দ করা হয়। বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে তিনটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আটককৃতরা হলো বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া ইউনিয়নের ঘিকমলা গ্রামের জহর মোল্যার ছেলে মঞ্জু মোল্যা, নরসিংদী জেলার রায়পুরা উপজেলার শাহেরচর মধ্যেপাড়ার কফিল উদ্দিন প্রধানের ছেলে মো. রিপন মিয়া  ও নরসিংদী সদর উপজেলার চিনিশপুর গ্রামের সোবহান মিয়ার ছেলে আইনুল মিয়া ওরফে শামীম। এঘটনায় অটোচালক আকমল হোসেন বাদী হয়ে তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।

নবাবপুর ইউনিয়নের বড়হিজলী গ্রামের বাসিন্দা আকমল হোসেন জানান, রাতে তার বাড়ির গ্যারেজে অটোরিক্সাটি চার্জে দিয়ে রেখেছিলেন। সাড়ে তিনটার দিকে কিছু একটার শব্দে তার মায়ের ঘুম ভাঙে। তার মা জানালা দিয়ে টর্চ মেরে দেখেন কয়েকজন তার অটোরিক্সাটি নিয়ে যাচ্ছে। তার মা চিৎকার দিলে বাইরে বেরিয়ে আটকানোর চেষ্টা করেন। এসময় দুর্বৃত্তরা তাকে রড দিয়ে পিটিয়ে রাস্তায় ফেলে দেয়। তিনি চিৎকার দিলে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে তিন দুর্বৃত্তকে আটক করে। পরে তাদের বালিয়াকান্দি থানায় সোপর্দ করা হয়।

বালিয়াকান্দি থানার ওসি তারিকুজ্জামান জানান, এব্যাপারে অটো চালক তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। আসামিদের মধ্যে রিপন মিয়ার নামে নরসিংদী, কুমিল্লা থানায় ডাকাতি ও দস্যুতার একাধিক মামলা রয়েছে। বৃহস্পতিবার তিনজনকে রাজবাড়ীর আদালতে চালান করা হয়েছে।