Dhaka ০৬:০১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

যাত্রী ছাউনিতে পড়েছিল বৃদ্ধার লাশ ॥ দাফন করলো পুলিশ

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : ০৭:১৪:৪২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ মে ২০২০
  • / ১৫০৬ জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন ॥ দৌলতদিয়া-খুলনা মহাসড়কের পাশে বসন্তপুর বাসস্ট্যান্ডের যাত্রী ছাউনী। এই ছাউনীতে পড়েছিল ৭০ বছর বয়সী বৃদ্ধার লাশ। করোনার ভয়ে কাছে যায়নি কেউ। পরে রাজবাড়ী সদর থানার পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে গভীর রাতে বেওয়ারিশ হিসেবে দাফন করে। শনিবার রাতে রাজবাড়ী সদর উপজেলার বসন্তপুর ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। বৃদ্ধা করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন কীনা তা পরীক্ষা করতে তার নমুনা সংগ্রহ করেছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।
স্থানীয় সূত্র জানায়, গত কয়েকদিন ধরে ওই বৃদ্ধা বসন্তপুর যাত্রী ছাউনীতে অবস্থান করছিল। কেউ তাকে চেনেনা। কোথা থেকে এসেছে তাও কেউ বলতে পারেনা। শনিবার সন্ধ্যার দিকে ওই যাত্রী ছাউনীতে বৃদ্ধা নিথর অবস্থায় পড়েছিল। দূর থেকে অনেকেই দেখে চলে যায়। স্থানীয় লোকজন অনুমান করছিল হয়তো করোনায় আক্রান্ত হয়ে ওই বৃদ্ধার মৃত্যু হয়েছে। যেকারণে ভয়ে কেউ কাছে ঘেঁষেনি।
রাজবাড়ী সদর থানার ওসি (তদন্ত) আমিনুল ইসলাম জানান, বৃদ্ধার লাশ যাত্রী ছাউনীতে পড়ে আছে এমন খবর পেয়ে রাত নয়টার দিকে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করা হয়। ইসলাম ধর্মীয় সকল রীতি নীতি অনুসরণ করে হুজুর ডেকে জানাজা পড়িয়ে রাত একটার দিকে পুলিশের তত্ত্বাবধানে বসন্তপুর কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়। বৃদ্ধার পরিচয় জানা যায়নি।
রাজবাড়ীর সিভিল সার্জন ডা. নুরুল ইসলাম জানান, মৃত বৃদ্ধার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। এখনও রিপোর্ট এসে পৌছায়নি।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

যাত্রী ছাউনিতে পড়েছিল বৃদ্ধার লাশ ॥ দাফন করলো পুলিশ

প্রকাশের সময় : ০৭:১৪:৪২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ মে ২০২০

জনতার আদালত অনলাইন ॥ দৌলতদিয়া-খুলনা মহাসড়কের পাশে বসন্তপুর বাসস্ট্যান্ডের যাত্রী ছাউনী। এই ছাউনীতে পড়েছিল ৭০ বছর বয়সী বৃদ্ধার লাশ। করোনার ভয়ে কাছে যায়নি কেউ। পরে রাজবাড়ী সদর থানার পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে গভীর রাতে বেওয়ারিশ হিসেবে দাফন করে। শনিবার রাতে রাজবাড়ী সদর উপজেলার বসন্তপুর ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। বৃদ্ধা করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন কীনা তা পরীক্ষা করতে তার নমুনা সংগ্রহ করেছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।
স্থানীয় সূত্র জানায়, গত কয়েকদিন ধরে ওই বৃদ্ধা বসন্তপুর যাত্রী ছাউনীতে অবস্থান করছিল। কেউ তাকে চেনেনা। কোথা থেকে এসেছে তাও কেউ বলতে পারেনা। শনিবার সন্ধ্যার দিকে ওই যাত্রী ছাউনীতে বৃদ্ধা নিথর অবস্থায় পড়েছিল। দূর থেকে অনেকেই দেখে চলে যায়। স্থানীয় লোকজন অনুমান করছিল হয়তো করোনায় আক্রান্ত হয়ে ওই বৃদ্ধার মৃত্যু হয়েছে। যেকারণে ভয়ে কেউ কাছে ঘেঁষেনি।
রাজবাড়ী সদর থানার ওসি (তদন্ত) আমিনুল ইসলাম জানান, বৃদ্ধার লাশ যাত্রী ছাউনীতে পড়ে আছে এমন খবর পেয়ে রাত নয়টার দিকে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করা হয়। ইসলাম ধর্মীয় সকল রীতি নীতি অনুসরণ করে হুজুর ডেকে জানাজা পড়িয়ে রাত একটার দিকে পুলিশের তত্ত্বাবধানে বসন্তপুর কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়। বৃদ্ধার পরিচয় জানা যায়নি।
রাজবাড়ীর সিভিল সার্জন ডা. নুরুল ইসলাম জানান, মৃত বৃদ্ধার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। এখনও রিপোর্ট এসে পৌছায়নি।