Dhaka ০৬:০২ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

রাজবাড়ীর পাংশায় চাচাতো ভাইকে গুলি করে হত্যা

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : ০৭:৩৮:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ মার্চ ২০২০
  • / ১৪২৬ জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন ॥ রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার কলিমহর ইউনিয়নের হাটবনগ্রামে কাজল বিশ্বাস (৩৮) নামে এক ব্যক্তিকে ডেকে নিয়ে গুলি করে হত্যা করেছে তার চাচাতো ভাই রবি বিশ্বাস। নিহত কাজল একই গ্রামের বুদ্ধিশ্বর বিশ্বাসের ছেলে। পেশায় তিনি একজন কৃষক ছিলেন। বুধবার রাত নয়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত রবি চরমপন্থী সংগঠনের সাথে যুক্ত বলে জানা গেছে। জমিজমা অথবা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা পুলিশের। রাজবাড়ীর পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান পিপিএম (বার)সহ পুলিশ কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
এলাকাবাসী ও পাংশা থানা সূত্র জানায়, কাজল বিশ্বাস ও তার চাচাত ভাই রবি বিশ্বাসের মধ্যে জমিজমা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। অভিযুক্ত রবি বেশ কিছুদিন আগে ভারত গিয়েছিল। বুধবার সকালে সে দেশে আসে। কাজল রাতে হাট বনগ্রাম বাজারে বন্ধুদের সাথে তাস খেলছিল। এ সময় রবি সেখানে গিয়ে কথা আছে বলে কাজলকে ডেকে বাজার থেকে দুশ গজ দূরে একটি আম বাগানে নিয়ে যায়। কিছুক্ষণ পর পাওয়া যায় গুলির শব্দ। স্থানীয় লোকজন সেখানে ছুটে গিয়ে কাজলকে মৃত অবস্থায় মাটিতে পড়ে থাকতে দেখেন। তার কানের নিচে চোয়াল ভেদ করে গুলি বেরিয়ে গেছে। এঘটনার পর এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। স্থানীয়রা জানিয়েছে, নিহত কাজল আগে চরমপন্থী দলের সাথে যুক্ত থাকলেও সম্প্রতি সে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসে। তবে রবি এখনও চরমপন্থী দলের সাথে যুক্ত আছে।
পাংশা থানার ওসি মো. আহসানউল্লাহ জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। জমিজমা অথবা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। নিহতের চোয়ালে গুলি লেগেছে। গুলিটি পাওয়া যায়নি। তাই সেটি কীসের তা এখন বলা সম্ভব নয়। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে। অভিযুক্ত রবিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

রাজবাড়ীর পাংশায় চাচাতো ভাইকে গুলি করে হত্যা

প্রকাশের সময় : ০৭:৩৮:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ মার্চ ২০২০

জনতার আদালত অনলাইন ॥ রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার কলিমহর ইউনিয়নের হাটবনগ্রামে কাজল বিশ্বাস (৩৮) নামে এক ব্যক্তিকে ডেকে নিয়ে গুলি করে হত্যা করেছে তার চাচাতো ভাই রবি বিশ্বাস। নিহত কাজল একই গ্রামের বুদ্ধিশ্বর বিশ্বাসের ছেলে। পেশায় তিনি একজন কৃষক ছিলেন। বুধবার রাত নয়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত রবি চরমপন্থী সংগঠনের সাথে যুক্ত বলে জানা গেছে। জমিজমা অথবা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা পুলিশের। রাজবাড়ীর পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান পিপিএম (বার)সহ পুলিশ কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
এলাকাবাসী ও পাংশা থানা সূত্র জানায়, কাজল বিশ্বাস ও তার চাচাত ভাই রবি বিশ্বাসের মধ্যে জমিজমা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। অভিযুক্ত রবি বেশ কিছুদিন আগে ভারত গিয়েছিল। বুধবার সকালে সে দেশে আসে। কাজল রাতে হাট বনগ্রাম বাজারে বন্ধুদের সাথে তাস খেলছিল। এ সময় রবি সেখানে গিয়ে কথা আছে বলে কাজলকে ডেকে বাজার থেকে দুশ গজ দূরে একটি আম বাগানে নিয়ে যায়। কিছুক্ষণ পর পাওয়া যায় গুলির শব্দ। স্থানীয় লোকজন সেখানে ছুটে গিয়ে কাজলকে মৃত অবস্থায় মাটিতে পড়ে থাকতে দেখেন। তার কানের নিচে চোয়াল ভেদ করে গুলি বেরিয়ে গেছে। এঘটনার পর এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। স্থানীয়রা জানিয়েছে, নিহত কাজল আগে চরমপন্থী দলের সাথে যুক্ত থাকলেও সম্প্রতি সে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসে। তবে রবি এখনও চরমপন্থী দলের সাথে যুক্ত আছে।
পাংশা থানার ওসি মো. আহসানউল্লাহ জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। জমিজমা অথবা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। নিহতের চোয়ালে গুলি লেগেছে। গুলিটি পাওয়া যায়নি। তাই সেটি কীসের তা এখন বলা সম্ভব নয়। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে। অভিযুক্ত রবিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।