Dhaka ০৯:৪৭ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রাজবাড়ীতে ধর্ষণের শিকার প্রতিবন্ধী শিশু, ধর্ষক গ্রেপ্তার

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : ১০:০৬:৪৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ১১ মার্চ ২০২০
  • / ১৪৮৯ জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন ॥রাজবাড়ীতে এবার আপন খালু দ্বারা ধর্ষণের শিকার হয়েছে ১১ বছর বয়সী প্রতিবন্ধী শিশু। এঘটনায় শিশুর মা বাদী হয়ে মঙ্গলবার রাতে রাজবাড়ী সদর থানায় মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ রাতেই ধর্ষক উজ্জল গাজীকে গ্রেপ্তার করেছে। সে রাজবাড়ী সদর উপজেলার মিজানপুর ইউনিয়নের পাচথুপি গ্রামের মৃত আলী হোসেন গাজীর ছেলে। এই নিয়ে গত ১৩ দিনের মধ্যে রাজবাড়ী সদর উপজেলা এলাকায় তিন শিশু ধর্ষণের ঘটনা ঘটলো।
নিপীড়নের শিকার শিশুর মা জানান, তার মেয়ে শারীরিক প্রতিবন্ধী। স্থানীয় ব্র্যাক স্কুলে দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়ে। তারা খুবই গরীব। তার বোন স্বামীকে নিয়ে তাদের বাড়িতে বেড়াতে এসেছে। মঙ্গলবার দুপুরের দিকে মেয়েকে বাড়িতে রেখে ঋণের টাকা তুলতে শহরে যান। বাড়ি ফিরে জানতে পারেন; তার শিশু মেয়েকে হাত পা টিপে দেয়ার কথা বলে ঘরে নিয়ে তার ভগ্নিপতি উজ্জ্বল জোরপূর্বক ধর্ষণ করেছে। ওই সময় তার বোন ঘটনা দেখে চিৎকার দিলে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে উজ্জ্বলকে আটক করে রাখে। পরে পুলিশ গিয়ে তাকে থানায় নিয়ে যায়। এঘটনায় তার মেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
রাজবাড়ী সদর থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে শিশুটির মেডিকেল পরীক্ষা করা হয়েছে। অভিযুক্ত ধর্ষক উজ্জ্বলকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
প্রসঙ্গত, গত ৯ ফেব্রুয়ারি সোমবার বিকেলে রাজবাড়ী সদর উপজেলার রামকান্তপুর ইউনিয়নের রায়নগর গ্রামে পাঁচ বছরের শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। এ ঘটনায় ৭২ বছরের বৃদ্ধ হানিফ খানের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। একই ইউনিয়নে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি তারিখে তিন বছরের শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। এ ঘটনায় অভিযুক্ত ফরিদ শেখ র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

রাজবাড়ীতে ধর্ষণের শিকার প্রতিবন্ধী শিশু, ধর্ষক গ্রেপ্তার

প্রকাশের সময় : ১০:০৬:৪৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ১১ মার্চ ২০২০

জনতার আদালত অনলাইন ॥রাজবাড়ীতে এবার আপন খালু দ্বারা ধর্ষণের শিকার হয়েছে ১১ বছর বয়সী প্রতিবন্ধী শিশু। এঘটনায় শিশুর মা বাদী হয়ে মঙ্গলবার রাতে রাজবাড়ী সদর থানায় মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ রাতেই ধর্ষক উজ্জল গাজীকে গ্রেপ্তার করেছে। সে রাজবাড়ী সদর উপজেলার মিজানপুর ইউনিয়নের পাচথুপি গ্রামের মৃত আলী হোসেন গাজীর ছেলে। এই নিয়ে গত ১৩ দিনের মধ্যে রাজবাড়ী সদর উপজেলা এলাকায় তিন শিশু ধর্ষণের ঘটনা ঘটলো।
নিপীড়নের শিকার শিশুর মা জানান, তার মেয়ে শারীরিক প্রতিবন্ধী। স্থানীয় ব্র্যাক স্কুলে দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়ে। তারা খুবই গরীব। তার বোন স্বামীকে নিয়ে তাদের বাড়িতে বেড়াতে এসেছে। মঙ্গলবার দুপুরের দিকে মেয়েকে বাড়িতে রেখে ঋণের টাকা তুলতে শহরে যান। বাড়ি ফিরে জানতে পারেন; তার শিশু মেয়েকে হাত পা টিপে দেয়ার কথা বলে ঘরে নিয়ে তার ভগ্নিপতি উজ্জ্বল জোরপূর্বক ধর্ষণ করেছে। ওই সময় তার বোন ঘটনা দেখে চিৎকার দিলে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে উজ্জ্বলকে আটক করে রাখে। পরে পুলিশ গিয়ে তাকে থানায় নিয়ে যায়। এঘটনায় তার মেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
রাজবাড়ী সদর থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে শিশুটির মেডিকেল পরীক্ষা করা হয়েছে। অভিযুক্ত ধর্ষক উজ্জ্বলকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
প্রসঙ্গত, গত ৯ ফেব্রুয়ারি সোমবার বিকেলে রাজবাড়ী সদর উপজেলার রামকান্তপুর ইউনিয়নের রায়নগর গ্রামে পাঁচ বছরের শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। এ ঘটনায় ৭২ বছরের বৃদ্ধ হানিফ খানের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। একই ইউনিয়নে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি তারিখে তিন বছরের শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। এ ঘটনায় অভিযুক্ত ফরিদ শেখ র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছে।