Dhaka ১০:৫৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ১২ জুন ২০২৪, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পাংশায় তালপাড়া নিয়ে হামলা সংঘর্ষ লুট \ আহত ১১

স্টাফ রিপোর্টার
  • প্রকাশের সময় : ০৯:২৪:০০ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ মে ২০২৪
  • / ১০৩৪ জন সংবাদটি পড়েছেন

 তালপাড়ার মত তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তুলকালাম ঘটনা ঘটেছে রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার হাবাসপুর ইউনিয়নের মাঠপাড়া গ্রামে। তিন দফা হামলা সংঘর্ষ ছাড়াও ঘটেছে লুটপাটের ঘটনাও। এসব ঘটনায় উভয়পক্ষের নারী শিশুসহ ১১ জন আহত হয়েছে। বর্তমানে তারা পাংশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন। মঙ্গলবার বিকেল, সন্ধ্যা ও বুধবার সকালে ওই গ্রামের জিন্নাহ সরদারের পরিবারের সদস্যদের সাথে রেজাউল মন্ডলের পরিবারের সদস্যদের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে। জিন্নাহ সরদারের পক্ষের আহতরা হলেন পান্না সরদার, গোলাপী বেগম, রাজিয়া বেগম, আমিন সরদার, জিন্নাহ সরদার ও ১০ বছরের শিশু সাব্বির। অপরপক্ষের আহতরা হলেন রেজাউল মন্ডল, আব্দুল্লাহ মন্ডল, আসাদ মন্ডল, হাকিম মন্ডল ও তোফাজ্জেল মন্ডল।

স্থানীয় সূত্র জানায়, মঙ্গলবার জিন্নাহ সরদারের ছেলে আল আমিন বন্ধুবান্ধব নিয়ে রেজাউল মন্ডলের গাছের তাল পেড়ে খায়। এ বিষয়টি নিয়ে মঙ্গলবার দুই দফা মারামারি হয়। বুধবার সকালে রেজাউল মন্ডলের লোকজন জিন্নাহ সরদারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে বসতঘর ভাংচুর করে। এসময় তাদের সাতটি ছাগল লুট করে নিয়ে যায়।

জিন্নাহ সরদারের ভাই আব্দুল মান্নান সরদার জানান, তার ভাতিজা রেজাউলের গাছের তাল পেড়ে খেয়েছিল। এজন্য সে ভুল স্বীকার করেছে। তারপর তাদের উপর হামলা চালানো হয়। তাদের বাড়িঘর ভাংচুর করে সাতটি ছাগল লুটে নিয়ে গেছে। তার ১০ বছরের ছেলেকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে মাথা ফাটানো হয়েছে। লুট করা ছাগলগুলো এখনও ওদের বাড়িতে বাধা আছে। এখন তারা কেউ ভয়ে বাড়িতে থাকতে পারছেন না। খুবই আতঙ্কে আছেন।

হাকিম মন্ডল জানান, আল আমিন তাদের গাছের সব তাল পেড়ে খেয়েছে। তাদের তিল ক্ষেত নষ্ট করেছে। একারণে তার ভাই আল আমিনকে বকেছিল। এ ঘটনা নিয়ে ওরা আমার ভাইকে মারধর করে। তিনি ঠেকাতে গেলে তাকেও মারধর করা হয়। সকালে ওদের বাড়ি থেকে যে ছাগলগুলো আনা হয়েছে তা ফিরিয়ে দেবেন বলে জানান।

পাংশা থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, বিষয়টি শোনার পর পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ বিষয়ে এখনও কেউ অভিযোগ দেয়য়নি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

পাংশায় তালপাড়া নিয়ে হামলা সংঘর্ষ লুট \ আহত ১১

প্রকাশের সময় : ০৯:২৪:০০ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ মে ২০২৪

 তালপাড়ার মত তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তুলকালাম ঘটনা ঘটেছে রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার হাবাসপুর ইউনিয়নের মাঠপাড়া গ্রামে। তিন দফা হামলা সংঘর্ষ ছাড়াও ঘটেছে লুটপাটের ঘটনাও। এসব ঘটনায় উভয়পক্ষের নারী শিশুসহ ১১ জন আহত হয়েছে। বর্তমানে তারা পাংশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন। মঙ্গলবার বিকেল, সন্ধ্যা ও বুধবার সকালে ওই গ্রামের জিন্নাহ সরদারের পরিবারের সদস্যদের সাথে রেজাউল মন্ডলের পরিবারের সদস্যদের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে। জিন্নাহ সরদারের পক্ষের আহতরা হলেন পান্না সরদার, গোলাপী বেগম, রাজিয়া বেগম, আমিন সরদার, জিন্নাহ সরদার ও ১০ বছরের শিশু সাব্বির। অপরপক্ষের আহতরা হলেন রেজাউল মন্ডল, আব্দুল্লাহ মন্ডল, আসাদ মন্ডল, হাকিম মন্ডল ও তোফাজ্জেল মন্ডল।

স্থানীয় সূত্র জানায়, মঙ্গলবার জিন্নাহ সরদারের ছেলে আল আমিন বন্ধুবান্ধব নিয়ে রেজাউল মন্ডলের গাছের তাল পেড়ে খায়। এ বিষয়টি নিয়ে মঙ্গলবার দুই দফা মারামারি হয়। বুধবার সকালে রেজাউল মন্ডলের লোকজন জিন্নাহ সরদারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে বসতঘর ভাংচুর করে। এসময় তাদের সাতটি ছাগল লুট করে নিয়ে যায়।

জিন্নাহ সরদারের ভাই আব্দুল মান্নান সরদার জানান, তার ভাতিজা রেজাউলের গাছের তাল পেড়ে খেয়েছিল। এজন্য সে ভুল স্বীকার করেছে। তারপর তাদের উপর হামলা চালানো হয়। তাদের বাড়িঘর ভাংচুর করে সাতটি ছাগল লুটে নিয়ে গেছে। তার ১০ বছরের ছেলেকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে মাথা ফাটানো হয়েছে। লুট করা ছাগলগুলো এখনও ওদের বাড়িতে বাধা আছে। এখন তারা কেউ ভয়ে বাড়িতে থাকতে পারছেন না। খুবই আতঙ্কে আছেন।

হাকিম মন্ডল জানান, আল আমিন তাদের গাছের সব তাল পেড়ে খেয়েছে। তাদের তিল ক্ষেত নষ্ট করেছে। একারণে তার ভাই আল আমিনকে বকেছিল। এ ঘটনা নিয়ে ওরা আমার ভাইকে মারধর করে। তিনি ঠেকাতে গেলে তাকেও মারধর করা হয়। সকালে ওদের বাড়ি থেকে যে ছাগলগুলো আনা হয়েছে তা ফিরিয়ে দেবেন বলে জানান।

পাংশা থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, বিষয়টি শোনার পর পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ বিষয়ে এখনও কেউ অভিযোগ দেয়য়নি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।