Dhaka 1:21 pm, Friday, 2 December 2022

রাজবাড়ীতে ফুটেছে নাইট কুইন

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : 05:53:08 pm, Sunday, 3 July 2022
  • / 1146 জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন রাজবাড়ী শহরের সজ্জনকান্দা বড়পুল এলাকায় সাবেক জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা আজিজা খানমের বাসায় শুক্রবারা রাতে ফুটেছে নাইট কুইন ফুল। ফুল ফোটার পর মিষ্টি গন্ধ ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে। অনেকেই নাইট কুইন ফুল দেখতে ভিড় জমায় তার বাড়িতে। সাদা রং এর ফুলের ভেতর ঘিয়ে রং এর আবরণ ও সুমিষ্ট গন্ধ সত্যিই অসাধারণ।

আজিজা খানম জানান, সাত আট বছর আগে শখ করে একটি নাইট কুইন ফুলের চারা টবে লাগিয়েছিলেন। গত তিন বছর যাবৎ ফুল ফুটছে। এ ফুল  মাত্র এক রাতের জন্য ফোটে। সন্ধ্যার পর কলি থেকে ফুলের পাপড়িগুলো ছড়াতে থাকে। মাঝরাতের পর আপনা আপনিই ফুলের পাপড়িগুলো ঘুমিয়ে যায়। এবার অনেকগুলো কলি এসেছে। এর মধ্যে  শুক্রবার এক রাতেই ফুটেছে আটটি নাইট কুইন ফুল। ফুলের বৃন্তগুলো সব কয়টি পাতার সাথে। পাতা কীভাবে এত বড় ফুলের ভাড় সইতে পারে  সেটিই আশ্চর্যের বিষয়। তাদের বাড়ির নাইট কুইন ফুল সাধারণতঃ বর্ষাকালেই ফোটে।

জানা গেছে, এই ফুলের বৈশিষ্ট্য অন্যান্য যেকোনো ফুলের তুলনায় একটু আলাদা। বছরের মাত্র একদিনে এবং রাতের কোনো এক সময় ফোটাই এর স্বভাবগত বৈশিষ্ট্য। নাইট কুইন নিজেকে আত্মপ্রকাশ ও বিকশিত করে রাতে এবং সেই রাতের অন্ধকারেই হয় তার জীবনাবসান। এর ফলে ফুলটিকে সচরাচর দেখা যায় না। এই ফুল দিনের আলো সইতে পারে না।

চারা থেকে ফুলটি ফুটতে সময় নেয় তিন-চার বছরেরও বেশী। এ ফুলের গাছ পাথরকুচি গাছের মতো পাতা থেকে অঙ্কুরিত হয়। একটি পাতা নরম মাটিতে রেখে দিলে ধীরে ধীরে সে পাতা থেকে অঙ্কুর বের হয় এবং পরে তা গাছে পরিণত হয়। একটি পাতা থেকে একাধিক গাছ জন্মাতে পারে। প্রথমে পাতার যে কোনো দিকে ছোট একটি গুটির মতো বের হয়। এই গুটি আস্তে আস্তে বড় হয়। ১৪ থেকে ১৫ দিনের মধ্যে সেই গুটি কলিতে রূপান্তরিত হয়। আর কলি পুষ্ট হওয়ার পর যে রাতে ফুল ফুটবে সেদিন বিকালেই কলিটি অদ্ভুত সুন্দর সাজে সজ্জিত হয়ে ওঠে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

রাজবাড়ীতে ফুটেছে নাইট কুইন

প্রকাশের সময় : 05:53:08 pm, Sunday, 3 July 2022

জনতার আদালত অনলাইন রাজবাড়ী শহরের সজ্জনকান্দা বড়পুল এলাকায় সাবেক জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা আজিজা খানমের বাসায় শুক্রবারা রাতে ফুটেছে নাইট কুইন ফুল। ফুল ফোটার পর মিষ্টি গন্ধ ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে। অনেকেই নাইট কুইন ফুল দেখতে ভিড় জমায় তার বাড়িতে। সাদা রং এর ফুলের ভেতর ঘিয়ে রং এর আবরণ ও সুমিষ্ট গন্ধ সত্যিই অসাধারণ।

আজিজা খানম জানান, সাত আট বছর আগে শখ করে একটি নাইট কুইন ফুলের চারা টবে লাগিয়েছিলেন। গত তিন বছর যাবৎ ফুল ফুটছে। এ ফুল  মাত্র এক রাতের জন্য ফোটে। সন্ধ্যার পর কলি থেকে ফুলের পাপড়িগুলো ছড়াতে থাকে। মাঝরাতের পর আপনা আপনিই ফুলের পাপড়িগুলো ঘুমিয়ে যায়। এবার অনেকগুলো কলি এসেছে। এর মধ্যে  শুক্রবার এক রাতেই ফুটেছে আটটি নাইট কুইন ফুল। ফুলের বৃন্তগুলো সব কয়টি পাতার সাথে। পাতা কীভাবে এত বড় ফুলের ভাড় সইতে পারে  সেটিই আশ্চর্যের বিষয়। তাদের বাড়ির নাইট কুইন ফুল সাধারণতঃ বর্ষাকালেই ফোটে।

জানা গেছে, এই ফুলের বৈশিষ্ট্য অন্যান্য যেকোনো ফুলের তুলনায় একটু আলাদা। বছরের মাত্র একদিনে এবং রাতের কোনো এক সময় ফোটাই এর স্বভাবগত বৈশিষ্ট্য। নাইট কুইন নিজেকে আত্মপ্রকাশ ও বিকশিত করে রাতে এবং সেই রাতের অন্ধকারেই হয় তার জীবনাবসান। এর ফলে ফুলটিকে সচরাচর দেখা যায় না। এই ফুল দিনের আলো সইতে পারে না।

চারা থেকে ফুলটি ফুটতে সময় নেয় তিন-চার বছরেরও বেশী। এ ফুলের গাছ পাথরকুচি গাছের মতো পাতা থেকে অঙ্কুরিত হয়। একটি পাতা নরম মাটিতে রেখে দিলে ধীরে ধীরে সে পাতা থেকে অঙ্কুর বের হয় এবং পরে তা গাছে পরিণত হয়। একটি পাতা থেকে একাধিক গাছ জন্মাতে পারে। প্রথমে পাতার যে কোনো দিকে ছোট একটি গুটির মতো বের হয়। এই গুটি আস্তে আস্তে বড় হয়। ১৪ থেকে ১৫ দিনের মধ্যে সেই গুটি কলিতে রূপান্তরিত হয়। আর কলি পুষ্ট হওয়ার পর যে রাতে ফুল ফুটবে সেদিন বিকালেই কলিটি অদ্ভুত সুন্দর সাজে সজ্জিত হয়ে ওঠে।