Dhaka 7:40 pm, Friday, 3 February 2023

বিয়ের দাওয়াতে ঢাকা থেকে ডেকে এনে ইয়াবা দিয়ে বন্ধুকে ফাঁসানোর চেষ্টা

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : 06:43:01 pm, Monday, 14 December 2020
  • / 1210 জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন ॥ বিয়ের দাওয়াত দিয়ে ঢাকা থেকে দুই বন্ধুকে ডেকে এনে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসানোর চেষ্টা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে সৌমিত্র রায় নামে এক কিশোরের বিরুদ্ধে। সোমবার রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত সৌমিত্র বালিয়াকান্দি উপজেলা এলাকার প্রশান্ত রায়ের ছেলে। সে মাদকাসক্ত বলে জানা গেছে।

বালিয়াকান্দি থানা ও ভুক্তভোগী দুই কিশোরের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সৌমিত্র রায় মাদকাসক্ত হওয়ায় তাকে বিভিন্ন মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে রাখা হয়। ঢাকার একটি নিরাময় কেন্দ্রে থাকাকালীন পরিচয় হয় অর্প খান ও রাফিনের সাথে। এরা দুজনেই ঢাকার বাসিন্দা। রোববার সৌমিত্র তার এক স্বজনের বিয়ের কথা বলে দুই বন্ধুকে ডেকে নিয়ে আসে। সোমবার সকালে উপজেলার জঙ্গল ইউনিয়নের ঢোলজানি বাজারে তিন বন্ধু বসেছিল। এক ফাঁকে সৌমিত্র একজনের ব্যাগের মধ্যে ইয়াবা ঢুকিয়ে কৌশলে মোবাইল ফোনটি নিয়ে নেয়। এরই মধ্যে পুলিশ এসে রাফিন ও অর্পকে ধরে নিয়ে যায়। তাদের কাছে পাওয়া যায় তিন পিচ ইয়াবা।

বালিয়াকান্দি থানার ওসি তারেকুজ্জামান জানান, দুজনকে থানায় এনে বিস্তারিত শোনেন। ঘটনা বিশ্লেষণ করে বুঝতে পারেন মোবাইল ফোন নেওয়ার উদ্দেশ্যে তাদেরকে ফাঁসানো হয়েছে। সৌমিত্র একজন মাদকাসক্ত কিশোর। আটক দুজনও কিশোর বয়সী। পরে সৌমিত্র ও তার বাবাকে ডেকে আনা হয়। সৌমিত্রকে মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে পাঠানোর শর্তে মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। ওই দুই কিশোরকে দেওয়া হয় বালিয়াকান্দি সদর ইউপি চেয়ারম্যানের জিম্মায়। তারা ঢাকা চলে গেছে বলে শুনেছেন।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

বিয়ের দাওয়াতে ঢাকা থেকে ডেকে এনে ইয়াবা দিয়ে বন্ধুকে ফাঁসানোর চেষ্টা

প্রকাশের সময় : 06:43:01 pm, Monday, 14 December 2020

জনতার আদালত অনলাইন ॥ বিয়ের দাওয়াত দিয়ে ঢাকা থেকে দুই বন্ধুকে ডেকে এনে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসানোর চেষ্টা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে সৌমিত্র রায় নামে এক কিশোরের বিরুদ্ধে। সোমবার রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত সৌমিত্র বালিয়াকান্দি উপজেলা এলাকার প্রশান্ত রায়ের ছেলে। সে মাদকাসক্ত বলে জানা গেছে।

বালিয়াকান্দি থানা ও ভুক্তভোগী দুই কিশোরের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সৌমিত্র রায় মাদকাসক্ত হওয়ায় তাকে বিভিন্ন মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে রাখা হয়। ঢাকার একটি নিরাময় কেন্দ্রে থাকাকালীন পরিচয় হয় অর্প খান ও রাফিনের সাথে। এরা দুজনেই ঢাকার বাসিন্দা। রোববার সৌমিত্র তার এক স্বজনের বিয়ের কথা বলে দুই বন্ধুকে ডেকে নিয়ে আসে। সোমবার সকালে উপজেলার জঙ্গল ইউনিয়নের ঢোলজানি বাজারে তিন বন্ধু বসেছিল। এক ফাঁকে সৌমিত্র একজনের ব্যাগের মধ্যে ইয়াবা ঢুকিয়ে কৌশলে মোবাইল ফোনটি নিয়ে নেয়। এরই মধ্যে পুলিশ এসে রাফিন ও অর্পকে ধরে নিয়ে যায়। তাদের কাছে পাওয়া যায় তিন পিচ ইয়াবা।

বালিয়াকান্দি থানার ওসি তারেকুজ্জামান জানান, দুজনকে থানায় এনে বিস্তারিত শোনেন। ঘটনা বিশ্লেষণ করে বুঝতে পারেন মোবাইল ফোন নেওয়ার উদ্দেশ্যে তাদেরকে ফাঁসানো হয়েছে। সৌমিত্র একজন মাদকাসক্ত কিশোর। আটক দুজনও কিশোর বয়সী। পরে সৌমিত্র ও তার বাবাকে ডেকে আনা হয়। সৌমিত্রকে মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে পাঠানোর শর্তে মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। ওই দুই কিশোরকে দেওয়া হয় বালিয়াকান্দি সদর ইউপি চেয়ারম্যানের জিম্মায়। তারা ঢাকা চলে গেছে বলে শুনেছেন।