Dhaka ০৬:৪২ অপরাহ্ন, শনিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২৩, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বালিয়াকান্দিতে ফিলিং স্টেশনে থাকা মাইক্রোবাস ভস্মিভূত, বড় ধরণের ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : ০৭:১১:২৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২০
  • / ১২৭৮ জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন : রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি শহরের ওয়াপদা মোড়ে ভাই ভাই ফিলিং স্টেশনে থাকা একটি মাইক্রোবাস বুধবার দিবাগত ভোর রাতে আগুনে পুড়ে ভস্মিভ‚ত হয়েছে। এসময় পাশে থাকা একটি প্রাইভেটকারও আংশিক পুড়ে যায়। ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের প্রচেষ্টায় বড় ধরণের ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে ফিলিং স্টেশনটি।

বালিয়াকান্দির রেন্ট এ কার ব্যবসায়ী আব্দুর রহিম জানান, বুধবার সন্ধ্যায় তিনি তার একটি মাইক্রোবাস  ও একটি প্রাইভেটকার ফিলিং স্টেশনে রেখে যান। ভোর রাত পৌনে চারটার দিকে মোবাইল ফোনে জানতে পারেন তার মাইক্রোবাসে আগুন লেগেছে। এসে দেখেন মাইক্রোবাসটি সম্পূর্ণ পুড়ে গেছে আর প্রাইভেটকারটি আংশিক পুড়েছে। এতে তার ২০ লাখ টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে। এব্যাপারে বৃহস্পতিবার দুপুরে বালিয়াকান্দি থানায় তিনি একটি জিডি করেছেন।

 বালিয়াকান্দি ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার শংকর কুমার বিশ্বাস জানান, অগ্নিকান্ডের খবর পাওয়া মাত্রই ফায়ার কর্মীরা দ্রæত ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। আর এক মিনিট দেরি হলে পুরো ফিলিং স্টেশনসহ আশেপাশের দোকাপাট পুড়ে ছাই হয়ে যেত। অগ্নিকান্ডের কারণ তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। তবে ধারণা করা হচ্ছে বিড়ি সিগারেট থেকে আগুনের সূত্রপাত হতে পারে। ওই ফিলিং স্টেশনে অগ্নি নির্বাপনের কোনো ব্যবস্থা ছিলনা বলে জানান তিনি।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

বালিয়াকান্দিতে ফিলিং স্টেশনে থাকা মাইক্রোবাস ভস্মিভূত, বড় ধরণের ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা

প্রকাশের সময় : ০৭:১১:২৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২০

জনতার আদালত অনলাইন : রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি শহরের ওয়াপদা মোড়ে ভাই ভাই ফিলিং স্টেশনে থাকা একটি মাইক্রোবাস বুধবার দিবাগত ভোর রাতে আগুনে পুড়ে ভস্মিভ‚ত হয়েছে। এসময় পাশে থাকা একটি প্রাইভেটকারও আংশিক পুড়ে যায়। ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের প্রচেষ্টায় বড় ধরণের ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে ফিলিং স্টেশনটি।

বালিয়াকান্দির রেন্ট এ কার ব্যবসায়ী আব্দুর রহিম জানান, বুধবার সন্ধ্যায় তিনি তার একটি মাইক্রোবাস  ও একটি প্রাইভেটকার ফিলিং স্টেশনে রেখে যান। ভোর রাত পৌনে চারটার দিকে মোবাইল ফোনে জানতে পারেন তার মাইক্রোবাসে আগুন লেগেছে। এসে দেখেন মাইক্রোবাসটি সম্পূর্ণ পুড়ে গেছে আর প্রাইভেটকারটি আংশিক পুড়েছে। এতে তার ২০ লাখ টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে। এব্যাপারে বৃহস্পতিবার দুপুরে বালিয়াকান্দি থানায় তিনি একটি জিডি করেছেন।

 বালিয়াকান্দি ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার শংকর কুমার বিশ্বাস জানান, অগ্নিকান্ডের খবর পাওয়া মাত্রই ফায়ার কর্মীরা দ্রæত ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। আর এক মিনিট দেরি হলে পুরো ফিলিং স্টেশনসহ আশেপাশের দোকাপাট পুড়ে ছাই হয়ে যেত। অগ্নিকান্ডের কারণ তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। তবে ধারণা করা হচ্ছে বিড়ি সিগারেট থেকে আগুনের সূত্রপাত হতে পারে। ওই ফিলিং স্টেশনে অগ্নি নির্বাপনের কোনো ব্যবস্থা ছিলনা বলে জানান তিনি।