Dhaka 7:35 am, Sunday, 5 February 2023

রাজবাড়ীতে করোনার উপসর্গ নিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : 06:03:21 pm, Wednesday, 1 April 2020
  • / 1338 জন সংবাদটি পড়েছেন

জনতার আদালত অনলাইন ॥ করোনার উপসর্গ নিয়ে রাজবাড়ীতে মঙ্গলবার রাতে ষাটোর্ধ্ব এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। তার নাম আক্কাছ সরদার। বাড়ি রাজবাড়ী শহরের টিএন্ডটি পাড়ায়। মঙ্গলবার রাতেই জানাজা শেষে স্থানীয় কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন হয়।
রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল সূত্র জানায়, জ্বর, কাশি, শ্বাসকষ্ট নিয়ে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে যান আক্কাছ সরদার। তাৎক্ষণিক তাকে আইসোলেশন ওয়ার্ডে নেয়া হয়। করোনার উপসর্গ থাকায় তার স্বজনদের আলাদা করে দেয়া হয়। পরে এক্সÑরে রিপোর্ট পরীক্ষার পর সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে তাকে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়।
রাজবাড়ীর সিভিল সার্জন ডা. নুরুল ইসলাম জানান, ওই রোগী যখন রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে আসে তখন জ্বর, কাশি, শ্বাসকষ্ট ছিল। অনেক আগে থেকে তার যক্ষারোগ ছিল বলে পরিবারের লোকেরা জানিয়েছে। করোনার উপসর্গ থাকায় তাকে ঢাকার কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানকার চিকিৎসকরা তাকে দেখে জানিয়েছে এটা করোনা নয়, অন্য কোনো রোগ। অন্য হাসপাতালে নিয়ে ভর্তির পরামর্শ দেন ডাক্তাররা। রোগীর স্বজনরা তাকে অন্য হাসপাতালে না নিয়ে বাড়িতে ফিরিয়ে আনছিলো। পথেই সে মারা যায়।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

রাজবাড়ীতে করোনার উপসর্গ নিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু

প্রকাশের সময় : 06:03:21 pm, Wednesday, 1 April 2020

জনতার আদালত অনলাইন ॥ করোনার উপসর্গ নিয়ে রাজবাড়ীতে মঙ্গলবার রাতে ষাটোর্ধ্ব এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। তার নাম আক্কাছ সরদার। বাড়ি রাজবাড়ী শহরের টিএন্ডটি পাড়ায়। মঙ্গলবার রাতেই জানাজা শেষে স্থানীয় কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন হয়।
রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল সূত্র জানায়, জ্বর, কাশি, শ্বাসকষ্ট নিয়ে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে যান আক্কাছ সরদার। তাৎক্ষণিক তাকে আইসোলেশন ওয়ার্ডে নেয়া হয়। করোনার উপসর্গ থাকায় তার স্বজনদের আলাদা করে দেয়া হয়। পরে এক্সÑরে রিপোর্ট পরীক্ষার পর সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে তাকে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়।
রাজবাড়ীর সিভিল সার্জন ডা. নুরুল ইসলাম জানান, ওই রোগী যখন রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে আসে তখন জ্বর, কাশি, শ্বাসকষ্ট ছিল। অনেক আগে থেকে তার যক্ষারোগ ছিল বলে পরিবারের লোকেরা জানিয়েছে। করোনার উপসর্গ থাকায় তাকে ঢাকার কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানকার চিকিৎসকরা তাকে দেখে জানিয়েছে এটা করোনা নয়, অন্য কোনো রোগ। অন্য হাসপাতালে নিয়ে ভর্তির পরামর্শ দেন ডাক্তাররা। রোগীর স্বজনরা তাকে অন্য হাসপাতালে না নিয়ে বাড়িতে ফিরিয়ে আনছিলো। পথেই সে মারা যায়।