Dhaka ০১:৪৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

রাজবাড়ীতে মাদকাসক্ত স্বামীর বিরুদ্ধে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

সংবাদদাতা-
  • প্রকাশের সময় : ০৯:১৪:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ মে ২০১৭
  • / ১২৭৬ জন সংবাদটি পড়েছেন

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজবাড়ী সদর উপজেলার চন্দনী ইউনিয়নের জৌকুড়া গ্রামে মঙ্গলবার বিকেলে মাদকাসক্ত স্বামী মাসুদ রানার হাতে গৃহবধূ তাহমিনা বেগম খুন হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়ান গেছে। তার বাড়ি একই গ্রামে।
নিহত তাহমিনার মামা মুকুল হোসেন জানান, সাত বছর আগে মাসুদ রানার সাথে তার ভাগ্নি তাহমিনার বিয়ে হয়। তাদের সংসারে একটি কন্যা সন্তানও রয়েছে। মাসুদ রানা কয়েক বছর ধরে ইয়াবায় আসক্ত হয়ে পড়েছে। মাদকের টাকার জন্য তাহমিনাকে সে নির্যাতন করতো। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে বেশ কয়েকবার অভিযোগও দেয়া হয়। চেয়ারম্যান বিচার সালিস করে ফেরত পাঠালে আবারও নির্যাতন করে মাসুদ রানা। মঙ্গলবার মাসুদ রানা তাহমিনাকে হত্যা করে লাশ ঘরের আড়ার সাথে ঝুলিয়ে রেখে আত্মহত্যা বলে প্রচার করে।
চন্দনী ইউপি চেয়ারম্যান সিরাজুল আলম চৌধুরী জানান, মাসুদ রানা ইয়াবায় আসক্ত ছিল। তাদের দাম্পত্য কলহ নিয়ে তার কাছে অভিযোগও ছিল।
রাজবাড়ী সদর থানার ওসি আবুল বাশার মিয়া জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করেছে। লাশের ময়নাতদন্ত করার পর নিশ্চিত হওয়া যাবে হত্যা না আত্মহত্যা। এব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

Tag :

সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন-

রাজবাড়ীতে মাদকাসক্ত স্বামীর বিরুদ্ধে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

প্রকাশের সময় : ০৯:১৪:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ মে ২০১৭

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজবাড়ী সদর উপজেলার চন্দনী ইউনিয়নের জৌকুড়া গ্রামে মঙ্গলবার বিকেলে মাদকাসক্ত স্বামী মাসুদ রানার হাতে গৃহবধূ তাহমিনা বেগম খুন হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়ান গেছে। তার বাড়ি একই গ্রামে।
নিহত তাহমিনার মামা মুকুল হোসেন জানান, সাত বছর আগে মাসুদ রানার সাথে তার ভাগ্নি তাহমিনার বিয়ে হয়। তাদের সংসারে একটি কন্যা সন্তানও রয়েছে। মাসুদ রানা কয়েক বছর ধরে ইয়াবায় আসক্ত হয়ে পড়েছে। মাদকের টাকার জন্য তাহমিনাকে সে নির্যাতন করতো। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে বেশ কয়েকবার অভিযোগও দেয়া হয়। চেয়ারম্যান বিচার সালিস করে ফেরত পাঠালে আবারও নির্যাতন করে মাসুদ রানা। মঙ্গলবার মাসুদ রানা তাহমিনাকে হত্যা করে লাশ ঘরের আড়ার সাথে ঝুলিয়ে রেখে আত্মহত্যা বলে প্রচার করে।
চন্দনী ইউপি চেয়ারম্যান সিরাজুল আলম চৌধুরী জানান, মাসুদ রানা ইয়াবায় আসক্ত ছিল। তাদের দাম্পত্য কলহ নিয়ে তার কাছে অভিযোগও ছিল।
রাজবাড়ী সদর থানার ওসি আবুল বাশার মিয়া জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করেছে। লাশের ময়নাতদন্ত করার পর নিশ্চিত হওয়া যাবে হত্যা না আত্মহত্যা। এব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।