কারাগারে নারী ভাইস চেয়ারম্যান আলেয়া

জনতার আদালত অনলাইন ভুয়া কাবিননামা দেখিয়ে স্বামী দাবি করার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় রাজবাড়ী সদর উপজেলা পরিষদের নারী ভাইস চেয়ারম্যান আলেয়া খাতুনের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। রোববার বিকেলে রাজবাড়ী ১ নং আমলী আদালতের বিচারক সুমন হোসেন এ আদেশ দেন। আলেয়া বেগমের বাড়ি রাজবাড়ী সদর উপজেলার চন্দনী ইউনিয়ন এলাকায়।

মামলার বাদী পক্ষের আইনজীবী নিজাম উদ্দিন হায়দার জানান, সম্প্রতি আলেয়া খাতুন রাজবাড়ী সদর উপজেলার মিজানপুর ইউনিয়নের সূর্যনগর গ্রামের বাসিন্দা মো. সুমন মিয়ার বাড়িতে গিয়ে একটি কাবিননামা দেখিয়ে তাকে স্বামী হিসেবে দাবি করেন। এ ঘটনার পর সুমন মিয়া বাদী হয়ে ৩০ লাখ টাকার ভুয়া কাবিননামার অভিযোগ এনে আলেয়া খাতুনের বিরুদ্ধে রাজবাড়ীর ১নং আমলী আদালতে মামলা দায়ের করেন। আদালত মামলাটি তদন্তের জন্য জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে দায়িত্ব দেন। জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা তদন্ত করে কাবিননামাটি সঠিক নয় মর্মে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করেন। এ প্রতিবেদনের প্রেক্ষিতে আদালত আলেয়া খাতুন ও তার দুই সাক্ষীর প্রতি সমন জারী করেন। রোববার উভয়পক্ষের শুনানী শেষে নারী ভাইস চেয়ারম্যান আলেয়া খাতুন ও কাবিননামার দুই সাক্ষীর জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

প্রসঙ্গত, বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আলেয়া খাতুন নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে জয়লাভ করেন। তার স্বামী ও দুই জন ছেলে সন্তান রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

     একই ধরনের আরও কিছু খবর....